LalmohanNews24.Com | logo

২৪শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ৮ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

করোনার সুযোগে বিনা টেন্ডারে স্কুল ভবন ভাঙ্গছে আওয়ামী লীগ নেতা

করোনার সুযোগে বিনা টেন্ডারে স্কুল ভবন ভাঙ্গছে আওয়ামী লীগ নেতা

করোনা ভাইরাসে যখন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে এ সুযোগে ভোলার লালমোহনে বিনা টেন্ডারে স্কুল ভবন ভেঙ্গে নিতে শুরু করেছে আওয়ামী লীগ নেতা। উপজেলার বদরপুর ইউনিয়নের চরকচ্চপিয়া এলাকায় ৬২নং পূর্ব চর কচ্চপিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের একটি একতলা ভবন রোববার হঠাৎ করে ভাঙ্গা শুরু করে ফরহাদ হোসেন মুরাদ নামের ওই নেতা। খবর পেয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা শাহানুর বেগম ঘটনাস্থলে এলে মুরাদ তার সাথে দুর্ব্যবহার করেন। একদিনেই ভবনের ছাদ পুরোপুরি ভেঙ্গে ফেললে পরে উপজেলা চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে সোমবার কাজ বন্ধ রাখে।

প্রধান শিক্ষিকা শাহানুর বেগম বলেন, তার স্কুলের ভবন হঠাৎ করে ভাঙ্গা শুরু করলে মুরাদ মেম্বারকে জিজ্ঞেস করলে তিনি দুর্ব্যবহার করেন। কাজ বন্ধ করতে নিষেধ করেন। বলেন, কাগজ আছে। পরে তার কাগজ নিয়ে দেখা যায়, ২০১৪ সালে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয় থেকে প্রেরিত একটি পত্রে জনৈক হাসিবুর রহমানের নামে ৭টি বিদ্যালয় নিলাম দেওয়া হয়। ওই ৭টির মধ্যে সাতবাড়িয়া স: প্রা: বিদ্যালয় নামে একটি বিদ্যালয় রয়েছে।

যার অবস্থান ধলীগৌরনগর ইউনিয়নের চতলা এলাকায়। ওই সময় সেই সব বিদ্যালয় ভেঙ্গেও নেওয়া হয়েছে। কিন্তু ফরহাদ হোসেন মুরাদ ৬ বছর পর ওই বিদ্যালয় ৬২নং পূর্ব চর কচ্চপিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মনে করে হঠাৎ করে রোববার ভাঙ্গা শুরু করেন। একদিনেই ভবনের ছাদ ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে। প্রধান শিক্ষিকা জানান, ওই ভবনে ৩য় ও ৪র্থ শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের ক্লাস চলতো। এখন তাদের ক্লাস করতে কষ্ট হবে।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার আয়ুব আলী বলেন, আমি অভিযোগ পেয়ে প্রধান শিক্ষিকাকে থানায় জানাতে বলেছি। এ ব্যাপারে কমিটি আছে কমিটি যাচাই বাছাই করে দেখবে।

আওয়ামী লীগ নেতা ফরহাদ হোসেন মুরাদের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এমন কোনো ঘটনার সাথে আমি জড়িত নাই। এটা মিথ্যা অভিযোগ।

Facebook Comments Box


যোগাযোগ

বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়

লালমোহন, ভোলা

মোবাইলঃ 01712740138

মেইলঃ jasimjany@gmail.com

সম্পাদক মন্ডলি

error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!! মোঃ জসিম জনি