LalmohanNews24.Com | logo

২রা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১৮ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সাংবাদিক জসিম জনির রোগমুক্তি কামনায় সহকর্মীদের আবেগী যত ফেসবুক পোষ্ট

সাংবাদিক জসিম জনির রোগমুক্তি কামনায় সহকর্মীদের আবেগী যত ফেসবুক পোষ্ট

নিউজ ডেস্কঃ লালমোহন প্রেসক্লাব সম্পাদক ও যুগান্তর প্রতিবেদক মো. জসিম জনি। লালমোহনের সাংবাদিকতায় তিনি একজন উজ্জ্বল নক্ষত্র। র্দীঘ দিন ধরে তিনি মাথায় ভোগ ছিলেন। তাই দেশের চিকিৎসায় কোনো সুফল না পেয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য ভারত যান তিনি। সেখানে গিয়ে বিভিন্ন পরিক্ষার মাধ্যমে তিনি জানতে পারেন তাঁর হার্টে একটি ফুটো রয়েছে। অার তার জন্য তিনি ফেসবুকে একটি স্টেটাস দিয়ে সকলের দোয়া কামনা করেন। তারপর থেকে তাঁর সহকর্মীরা বিভিন্ন পোষ্ট দিয়ে তাকে শান্ত না ও দোয়া চেয়েছেন। সহকর্মীদের দেওয়া ফেসবুকে কিছু পোষ্ট নিচে তুলে ধরা হলোঃ

সাংবাদিক তপতী রাণী লিখেছেনঃ  লালমোহনের সাংবাদিক জগতের এক উজ্জ্বল নক্ষত্র। যিনি ছিলেন আপোষহীন সংবাদকর্মী, সৎ, নির্ভীক,নিষ্ঠাবান। তিনি সততার সাথে চারদিকে ছুটে গিয়ে সংবাদ সগ্রহ করতেন। তার হাত ধরে লালমোহনে তৈরি হয়েছে অসংখ্য সাংবাদিক। তার নেত্রীত্বেই গঠিত হয় লালমোহন রিপোর্টার্স ইউনিটি। বর্তমানে তিনি লালমোহন প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক। শুধু সাংবাদিক হিসেবে নয় সংস্কৃতি জগতেও তিনি এক তুখোড় সংগঠক। তিনি লালমোহনের ঐতিহ্যবাহী সাংস্কৃতিক সংগঠন তোলপাড় কৃষ্টি সংসারের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দীর্ঘ দিন যাবত সুনামের সাথে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। এছাড়াও তিনি বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমীর যুগ্ম সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বরত আছেন।তিনি অন্য কেউ নন। তিনি আমাদের সকলের প্রিয় জসিম জনি। বর্তমানে মাইগ্রেনের চিকিৎসার জন্য ভারতের তামিল নাড়ু ভেলুরের সি এম সি হাসপাতালে চিকিৎসারত আছেন। গতকাল তার মাইগ্রেনের পরীক্ষা নিরীক্ষায় হার্টের সমস্যা ধরা পরলে তাকে কার্ডিওলজী বিভাগে রেফার করা হয়। আজ কার্ডিওলজীর ডাঃ পরীক্ষা করে জানান তার হার্ট ফুটো হয়ে গেছে। আমি একজন ক্ষুদে সংবাদ কর্মী হিসেবে জসিম জনির জন্য সকলের কাছে আশির্বাদ প্রার্থনা করছি।

সাংবাদিক সাব্বির আলম বাবু লিখেছেনঃ  তখন কত 1996-97 সাল তৎকালিন জনপ্রিয় জাতীয় দৈনিক আজকের কাগজের পাঠক সংগঠন কাপাইয়ে লেখালেখির মাধ্যমে পরিচয় হয় সাংবাদিক জসিম জনির সাথে। পাবলিক লাইব্রেরীতে ( তৎকালিন মহিলা কলেজ) প্রথম পরিচয়ে দুজনের হাত মেলানো ও একে অপরকে সাদরে গ্রহন করা আজও একই রকম আছে। সেই কঙ্কাল সাদৃশ্য দুই তরুন সংবাদকর্মীর মাঝে অনেক মিল যেমন চেহারা, শরীর, লেখালেখির বিষয় বৈচিত্রতা, তথাকথিত আজকের সংবাদকর্মীদের মতো না অর্থ বা লাভের আশায় না ছুটে নিজের সামাজিক দায়বদ্ধতা ও মানবিকতা, সত্যের অনুসন্ধান, সাহসিকতা, প্রতিকুল পরিস্থিতি মোকাবেলা, নবীন সংবাদ কর্মীদের পেশাগত মান উন্নয়নে উৎসাহ দান, দুজনেরই মাথা ব্যাথা রোগ ইত্যাদি সর্বোপরি দুজনে এক আত্মা, বন্ধু, ভাই…. যা দেখে অনেকেই আড়ালে হিংসা করতো। জসিম জনি সম্পর্কে লিখতে গেলে হাজার লাইন লিখতে হয় যা আমার মতো ক্ষুদ্র ব্যক্তির পক্ষে সম্ভব নয় তার পরিচয় একের ভেতর অনেক….লেখক, সাংবাদিক, সাংষ্কৃতিক সংগঠক, মানবাধিকার কর্মী, শিক্ষক পত্রিকা সম্পাদক, প্রকাশক ইত্যাদি…যার খ্যাতি শুধু লালমোহন নয় ভোলা, বরিশাল ছাড়িয়ে সুদুর ঢাকা পর্যন্ত বিস্তৃত। তার কাছে আমার অনেক ঋন। আজ আমার সাংবাদিক পরিচিতি শুধুমাত্র তার জন্য। আমার ম্যাস লাইন মিডিয়ার ট্রেনিংয়ের মাধ্যমে সংবাদকর্মী হয়ে ওঠা, রিপোর্টার্স ইউনিটি ও প্রেসক্লাবের সদস্য পদ লাভের পেছনে তার রয়েছে অনেক সংগ্রাম ও অবদান। এমন কি নিজে যে পত্রিকায় কাজ করতো মানবজমিন, যায়যায়দিন, ডেসটিনি আমাকে কাজ করার জন্য ছেড়ে দিয়েছিল যা বন্ধুত্বের জন্য বিরল দৃষ্টান্ত। তবে ব্যক্তিগত জীবনেও প্রচার বিমুখ জসিম জনিকে পৃথিবীতে আসার পর থেকে এখন পর্যন্ত জীবন যুদ্ধ চালিয়ে যেতে হচ্ছে। ছোট বেলায় বাবা ও চাচা মারা যান অভিভাবক না থাকায় বৃদ্ধ দাদা দাদির কাছে মানুষ। তারাও এখন আর বেঁচে নেই মানষিক অদম্য শক্তি আর দৃঢ়তাই নানা বাধা প্রতিকুলতাকে পাশ কাটিয়ে তাকে আজকের নিজ নামে প্রতিষ্ঠিত জসিম জনি তৈরী করেছে। বর্তমানে পুরনো মাথাব্যাথা আর হার্টের চিকিৎসার জন্য ভারতের তামিলনাঢ়ুর ভেলোরে সিমসি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে। আমার বন্ধু ও ভাই সদা প্রানচাঞ্চল্যে বলিয়ান জসিম জনি যেন আশু রোগমুক্তি হয়ে আমাদের মাঝে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসে সে জন্য সকলের কাছে অন্তর থেকে দোয়া চাই।

সাংবাদিক জহিরুল ইসলাম লিখেছেনঃ লালমোহন যুগান্তরের উপজেলা প্রতিনিধি জসিম জনি অসুস্থ অবস্থায় ভারতের তামিলনারুর সিএমসি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।সকলে তার জন্য দোয়া ও সার্বিক সহযোগিতায় এগিয়ে অাসার অবেদন করছি।

 

সংগ্রাহকঃ হাসান পিন্টু

Facebook Comments Box


যোগাযোগ

বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়

লালমোহন, ভোলা

মোবাইলঃ 01712740138

মেইলঃ jasimjany@gmail.com

সম্পাদক মন্ডলি

error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!! মোঃ জসিম জনি