LalmohanNews24.Com | logo

৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২০শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং

শঙ্কার মেঘ কেটে গেছে

শঙ্কার মেঘ কেটে গেছে

প্রবল বায়ুদূষণের মাঝেই অনেক শঙ্কা নিয়ে প্রথম ম্যাচে মাঠে নেমেছিল ভারত ও বাংলাদেশ ক্রিকট দল। কিছু বিড়ম্বনা স্বত্বেও সে ম্যাচ ভালভাবেই শেষ হযেছে। তবে দ্বিতীয় ম্যাচ নিয়েও দেখা দিয়েছিল আরেক আশঙ্কা। সেটা অবশ্য দূষণ নয়। আসন্ন ঘুর্ণিঝড়ের প্রভবে বৃষ্টি চোখ রাঙাচ্ছিল রাজকোটের শুরু হতে যাওয়া দ্বিতীয় ম্যাচকে।

তবে সকালেই সেখানকার আকাশে রোদ হেসেছে। এখন রৌদ্রোজ্জ্বল আবহাওয়া বিরাজ করছে। খেলছে ঝলমলে রৌদ। ঝকঝকে আকাশ বলে দিচ্ছে ম্যাচ নিয়ে তেমন কোনো দ্বিধা নেই। ফলে যথাসময়েই ম্যাচ আয়োজনের আশা করছেন আয়োজকরা।

অবশ্য গতকাল বুধবার বিকালে নয়নাভিরাম সৌরাষ্ট্র ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন স্টেডিয়ামের আকাশে জমকালো মেঘ ভিড় করে। সন্ধ্যায় শুরু হয় প্রবল ঝড় আর বৃষ্টি। তবে এই বৈরী আবহাওয়ার স্থায়িত্বকাল ছিল ঘণ্টাখানেক। এর পর রাতভর হালকা বর্ষণ হলেও নতুন দিনের শুরুতেই সূর্য হার্সে।

এর আগে দুঃসংবাদ দেয় স্থানীয় আবহাওয়া অধিদফতর। ম্যাচের দিন মহা গুজরাট ও মহারাষ্ট্রের উপকূলে আঘাত হানবে। কিন্তু তা আগের দিনই দুর্বল হয়ে অনেকখানি সরে যায়। পরবর্তী আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়, মহা সরে গেলেও দিনভর ভারী বৃষ্টিপাত হবে। কিন্তু আবহাওয়া রিপোর্টকে ভুল প্রমাণ করে রাজকোটের আকাশ হাসছে সূয্যিমামা।

এদিন স্থানীয় সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় শুরু হবে বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ। তিন ম্যাচ সিরিজে ১-০ তে এগিয়ে আত্মবিশ্বাসে টগবগ করছেন টাইগাররা। ঠিক মুদ্রার উল্টো পৃষ্ঠে মেন ইন ব্লুদের অবস্থান,ব্যাকফুটে তারা।

এটি তাদের জন্য ডু আর ডাই ম্যাচ। যেকোনো মূল্যে সিরিজে সমতায় ফিরতে মরিয়া তারা। তবে তাদের বিন্দুমাত্র ছাড় দেবেন না মাহমুদউল্লাহরা। এখন স্বাগতিকরা কামব্যাক করেন না সফরকারীরা সিরিজ জিতে ইতিহাস গড়েন- তাই দেখার।

Facebook Comments


যোগাযোগ

বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়

লালমোহন, ভোলা

মোবাইলঃ 01712740138

মেইলঃ jasimjany@gmail.com

সম্পাদক মন্ডলি

error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!! মোঃ জসিম জনি