LalmohanNews24.Com | logo

১০ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২৫শে আগস্ট, ২০১৯ ইং

রাজমিস্ত্রী থেকে ডাক্তার হওয়ার স্বপ্নে বিভোর ইউসুফ

রাজমিস্ত্রী থেকে ডাক্তার হওয়ার স্বপ্নে বিভোর ইউসুফ

রাজমিস্ত্রীর কাজ করেন ইউসুফ নবি। স্বপ্ন দেখেন ডাক্তার হবেন। দরিদ্র পরিবারের সন্তান বলে নিজের পড়ালেখার খরচ নিজেই চালাচ্ছেন। কখনো কখনো দিন মজুরেরও কাজ করেন তিনি। তবে তার স্বপ্নে আছে বাধার দেয়াল।

এই ইউসুফের বাড়ি লালমনিরহাটের হাতীবান্ধার সিঙ্গিমারী ইউনিয়নের দক্ষিণ গড্ডিমারী গ্রামের ৪ নং ওয়ার্ডে। বাবা দিনমজুর লুৎফর রহমান ও মা নয়ন তারার দ্বিতীয় সন্তান তিনি। এবার হাতীবান্ধা আলিমুদ্দিন সরকারি কলেজ থেকে বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এইচএসিতে জিপিএ ৫ পেয়েছেন।

ইউসুফের বাবা লুৎফর রহমান জানান, দিনমজুরের কাজ করি। ছয় সদস্যের পরিবার। চার ছেলেই পড়ালেখা করে। বড় ছেলে অনার্স ২য় বর্ষে, ইউসুফ এবার এইচএসি পাশ করলো আর ছোট দুই ছেলে ১০ম শ্রেণি ও ২য় শ্রেণিতে পড়ে। সংসার চালাতে হিমশিম খেতে হয়। সবার পড়ালেখার খরচ দিতে পারি না। সবাই পড়ালেখার পাশাপাশি অন্যান্য কাজ করে। ইউসুফ নবি অত্যান্ত মেধাবী। জেএসসি ও এসএসসিতেও জিপিএ ৫ পেয়েছে। সে স্বপ্ন দেখে ডাক্তার হবে।   আমার পক্ষে স্বপ্ন পূরণ করা সম্ভব নয়। তাই তাকে বলেছি নিজের পড়ার খরচ জোগার করতে পারলে পড়াশুনা কর। না পারলে গার্মেন্টসে কাজ কর।

ইউসুফ নবি বলেন, ছোটবেলা থেকেই ইচ্ছে ছিল আমি বড় হয়ে ডাক্তার হব। তাই বিজ্ঞান বিভাগ থেকেই লেখাপড়া করেছি। কিন্তু এখন মনে হয় আমার সেই ইচ্ছে আর পূরণ হবে না। গরিবের ঘরে জন্ম নেয়াই কি আমার অপরাধ? শুনেছি সমাজের অনেক বিত্তবানদের সহযোগিতায় অনেকেই লেখাপড়া করছে। অনেক বেসরকারি ব্যাংক থেকে শিক্ষাবৃত্তি নিয়ে তারা লেখাপড়া চালিয়ে যাচ্ছে। আমার কপালে কি সেটাও জুটবে না?

হাতীবান্ধা আলিমুদ্দিন সরকারি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ শামসুল হক জানান, ইউসুফ নিঃসন্দেহে অত্যান্ত মেধাবী একজন ছাত্র। লেখাপড়ার প্রতি তার প্রচন্ড আগ্রহ রয়েছে। কিন্তু অর্থনৈতিক সংকট তার লেখাপড়ায় একমাত্র বাধা হয়ে দাড়িয়েছে। অর্থনৈতিক সহযোগিতা পেলে ইউসুফ তার স্বপ্ন পূরণ করে দেশের সম্পদ তৈরি হতে পারে।

Facebook Comments


যোগাযোগ

বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়

লালমোহন, ভোলা

মোবাইলঃ 01712740138

মেইলঃ jasimjany@gmail.com

সম্পাদক মন্ডলি

error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!! মোঃ জসিম জনি