LalmohanNews24.Com | logo

৭ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ২৩শে অক্টোবর, ২০২০ ইং

চরফ্যাসনে ধর্ষকের হাত থেকে বাঁচতে লম্পটের পুরুষাঙ্গ কর্তন

চরফ্যাসনে ধর্ষকের হাত থেকে বাঁচতে লম্পটের পুরুষাঙ্গ কর্তন

চরফ্যাসনে ঘুমন্ত গৃহবধূর ওপর ঝাঁপিয়ে পড়া মানুষরূপী হায়নার পুরুষাঙ্গ কেটে নিজের সম্ভ্রম বাঁচালেন এক গৃহবধূ। রোববার দিবাগত গভীর রাতে শশীভূষণ থানার রসুলপুর ইউনিয়নের ভাসানচর গ্রামের আবাসান প্রকল্পে গৃহবধূর বসতঘরের বিছানায় এই ঘটনা ঘটে। স্থানীয়রা আহত ও রক্তাক্ত নঈম (৩৫)কে উদ্ধার করে চরফ্যাসন হাসপাতালে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসক গুরুতর আহত নঈমকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছেন। নঈম একই গ্রামের আজম আলী সর্দারের ছেলে এবং পেশায় ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেলের চালক বলে জানাগেছে।

এঘটনায় গৃহবধূ বাদি হয়ে আজ সোমবার দুপুরে নঈমকে আসামী করে শশীভূষণ থানায় ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে মামলা দায়ের করেছেন।

গৃহবধূ জানান, তার স্বামী পেশায় জেলে। ঘটনার রাতে স্বামী বাড়ি ছিলেন না,  মাছ ধরার কাজে নদীতে ছিলেন। আবাসনের ঘরে ৯ বছরের শিশুসন্তানসহ ঘুমিয়ে ছিলেন। গভীর রাতে প্রাকৃতিক ডাকে সাড়া দিতে বাহিরে যান। এসময়ে ঘরের বাহিরে  ওৎপেতে থাকা নাঈম ঘরে ঢুকে চকির নিচে লুকিয়ে থাকেন। গৃহবধু বাহির থেকে এসে দরজা বন্ধ করে আবারও ঘুমিয়ে পড়েন। ঘুমন্ত অবস্থায় বিবস্ত্র  নঈম তাকে  ঝাপটে ধরেন এবং মুখ চেপে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। নিজের সম্ভ্রম বাঁচাতে প্রাণপন চেষ্টা করেন গৃহবধূ। ধস্তাধস্তির মধ্যেই  বিছানার পাশে সেলাইরত কাথাঁ থেকে ধারালো বেøড হাতিয়ে নেন গৃহবধূ। নিজের সম্ভ্রম বাঁচাতে ওই ব্লেড দিয়ে ধর্ষণের চেস্টাকারী নঈমের পুরুষাঙ্গ কেটে দেন তিনি।

প্রতিবেশী মাকসুদ জানান, পুরুষাঙ্গ কাঁটার পর  বাঁচার জন্য  চিৎকার শুরু  করেন নঈম। চিৎকার দিয়ে উঠেন গৃহবধূও। ডাকচিৎকারে তারা  ছুঁটে আসেন এবং নঈমকে উদ্ধার করে হাসপাতাল পাঠান।

গৃহবধূ আরো জানান,স্বামীর সাথে পূর্ব পরিচয়ের সূত্রে নঈম তার বাড়িতে আসা যাওয়া করতো।এক পর্যায় নঈম তাকে কুপ্রস্তাব দিতে শুরু করে। বিষয়টি তিনি স্বামীসহ পরিবারের সদস্যদের অবহিত করেন। রোববার দুপুরে নঈম তার বাড়ি আসেন এবং তাকে ঘরের মধ্যে ঝাপটে ধরেন। তিনি ডাক চিৎকার দিলে নঈম পালিয়ে যান। গভীর রাতে তিনি প্রাকৃতিক ডাকে সাড়া দিতে বের হলে নঈম চুপিসাড়ে ঘরের মধ্যে ঢুকে পালিয়ে থাকেন। তিনি ঘুমিয়ে পড়লে বিবস্ত্র নঈম তার ওপর হামলে পড়েন।

গ্রামবাসীরা জানান, নঈম বিবাহিত এবং দুই সন্তানের জনক।চরফ্যাসন হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা.রাসেল আহমেদ মিয়া জানান, পুরুসাঙ্গে ৫০ ভাগ ক্ষত থাকায় নঈমকে বরিশাল রেফার করা হয়েছে।

শশীভূষণ থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, ধর্ষণচেষ্টার মামলা নেয়া হয়েছে।

Facebook Comments


যোগাযোগ

বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়

লালমোহন, ভোলা

মোবাইলঃ 01712740138

মেইলঃ jasimjany@gmail.com

সম্পাদক মন্ডলি

error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!! মোঃ জসিম জনি