LalmohanNews24.Com | logo

২৩শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ৮ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

কাশ্মিরে মোদির ভরাডুবি

কাশ্মিরে মোদির ভরাডুবি

বিশেষ মর্যাদা বাতিলের পর প্রথমবারের মতো নির্বাচন হলো ভারতশাসিত কাশ্মীরে। বর্তমানে কেন্দ্রশাসিত জম্মু-কাশ্মীরে জেলা উন্নয়ন পরিষদের (ডিডিসি) নির্বাচনে সংখ্যাগরিষ্ঠ আসন দখল করেছে ফারুক আবদুল্লাহর নেতৃত্বাধীন গুপকর জোট। খবর এনডিটিভির।

পিপলস অ্যালায়েন্স ফর গুপকর ডিক্লারেশন (পিএজিডি) নামের এই জোট ভারতপন্থী হলেও কাশ্মিরে স্বশাসনের পক্ষে। তারা মোট ২৮০টি আসনের মধ্যে ১১২টিতে জয়লাভ করেছে। গত ২৮ নভেম্বর থেকে শুরু হয়ে ১৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত মোট আট ধাপে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির হিন্দু জাতীয়তাবাদী ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি) পেয়েছে ৭৪টি আসন। এর মধ্যে মুসলিম অধ্যুষিত কাশ্মির থেকে পেয়েছে মাত্র ৩টি আসন। বাকিগুলো জম্মু অঞ্চলের চারটি হিন্দু সংখ্যাগরিষ্ঠ জেলা থেকে এসেছে। সেখানে তাদের উল্লেখযোগ্য সমর্থনও রয়েছে।

এ ছাড়া স্বতন্ত্র প্রার্থীরা পেয়েছেন ৪৯টি আসন এবং ভারতের প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেস পার্টি পেয়েছে মাত্র ২৬টি আসন। বাকি কয়েকটি আসনের ফলাফল পরে ঘোষণা করা হবে।

নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, অঞ্চলটির ২০টি জেলাজুড়ে প্রায় ৬ মিলিয়ন ভোটারের মধ্যে ৫১ শতাংশের বেশি ভোট পড়েছে। এটি গণতন্ত্রের বৃহত্তম উৎসব।

ভারত-সমর্থিত রাজনৈতিক দল পিপলস কনফারেন্সের সভাপতি ও পিএজিডি মুখপাত্র সাজাদ লোন আলজাজিরাকে বলেন, এই নির্বাচন পিএজিডির পক্ষে কাশ্মিরের জনগণের রায়। তাই আশা করছি, রাজনৈতিক প্রক্রিয়া পুনরায় চালু করতে পারবো।

২০১৯ সালের আগস্টে অঞ্চলটির বেশিরভাগ রাজনৈতিক নেতাকে আটক করে ভারতীয় প্রশাসন। এরপর থেকেই জম্মু-কাশ্মিরে রাজনৈতিক কার্যক্রম এক প্রকার বন্ধ হয়ে যায়।

এ বিষয়ে তিনি বলেন, আমরা জম্মু ও কাশ্মিরের জনগণের জন্য একত্রিত হয়েছি। অন্যরা কে কী বলল, সেদিকে কর্ণপাত করার সময় নেই। লোকেরা সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে এটিই গুরুত্বপূর্ণ।

Facebook Comments


যোগাযোগ

বার্তা ও বানিজ্যিক কার্যালয়

লালমোহন, ভোলা

মোবাইলঃ 01712740138

মেইলঃ jasimjany@gmail.com

সম্পাদক মন্ডলি

error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!! মোঃ জসিম জনি